দেশে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি জট লাগিয়েছে : এরশাদ

মুখোমুখি প্রতিদিন ডেস্ক: সব কিছুতে জট লেগেছে, উন্নয়নে জট, চাকরিতে জট, রাস্তাঘাটে জট, দুর্নীতিতে জট। আওয়ামী লীগ ও বিএনপি এ জট লাগিয়েছে। জাতীয় পার্টিই পারে এই জট খুলে দেশের মানুষকে শান্তি দিতে। বললেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। শনিবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে জাতীয় পার্টির যৌথ সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। সভায় সারাদেশ থেকে প্রায় পাঁচ হাজার নেতাকর্মী অংশ নেন।

এরশাদ বলেন, সরকার কথায় কথায় বলে দেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে। আমরা তো দেখি এখন মহাসড়কে শুধু পানি আর পানি। পানি দিয়ে সরকার কি উন্নয়ন করছে, তা তো দেশের মানুষ হারে হারে টের পাচ্ছে।তিনি বলেন, সরকার রাষ্ট্র পরিচালনা ব্যর্থ। মানুষের জান ও মালের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ, চারদিকে দুর্নীতি আর সন্ত্রাস। ব্যাংকের টাকা লুট হচ্ছে, বাংলাদেশ ব্যাংক থেকেও টাকা লুটপাট করে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। কিন্তু সরকার কিছু করছে না। চারদিকে আজ দুর্নীতি ছেয়ে গেছে। ঢাকা শহর বসবাসের অযোগ্য হয়ে গেছে। চারদিকে শুধু অশান্তি। জাতীয় পার্টিই পারবে দেশের মানুষকে বাঁচাতে।জাপা চেয়ারম্যান বলেন, সম্মিলিত জাতীয় জোটের ব্যানারে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমরা ৩শ’ আসনে প্রার্থী দিবো। আওয়ামী লীগ-বিএনপির হাত থেকে দেশের মানুষ আমাদের ভোট দিয়ে রাষ্ট্র ক্ষমতায় আনবে বলে বিশ্বাস করি। ক্ষমতায় এসে আমরা দেশের মানুষকে শান্তি ফিরিয়ে দেব।এরশাদ বলেন, আগামী তিন মাস সারাদেশে জাতীয় পার্টি ও জোটের ব্যানারে সভা সমাবেশ হবে। শহর, বন্দর, গ্রামে গঞ্জে, পার্টিকে আরো সুসংগঠিত করতে হবে। এসময় নভেম্বর মাসে ঢাকার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে জোটের পক্ষ থেকে মহাসমাবেশ করার ঘোষণা দেন এরশাদ।সভায় অন্যদের মধ্যে বিরোধী দলীয় নেতা ও পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান বেগম রওশন এরশাদ এমপি, পার্টির কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদের, মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার।

সূত্র: আরটিভি নিউজ

Share Button

Comments

comments

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*